মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ০৮:২১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
দেবিদ্বারে কেঁদে কেঁদে ঈগল প্রতিকে ভোট চাইলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী আবুল কালাম নৌকায় ভোট দিয়েই মেঘনার সঠিক উন্নয়ন ঘটানো সম্ভব… সেলিমা আহমাদ ঈগলে ভোট দিলে গোমতীর মাটি লুট জিবির নামে চাঁদাবাজি বন্ধ হবে: আবুল কালাম আজাদ দেবিদ্বারে স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিসে আগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা কুমিল্লায় পুলিশের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ ব্রাজিলে ঘূর্ণিঝড়ে নিহত ২২ সিলেটে মসজিদের পুকুর থেকে ইমামের মরদেহ উদ্ধার সিলেটে সিএনজি স্টেশনের জেনারেটর বিস্ফোরণে দগ্ধ ৭ বার্মিংহাম সিটি কাউন্সিলের নিজেদের দেউলিয়া ঘোষণা মারা গেলেন লন্ডনের বাংলাদেশ হাইক‌মিশনের মিনিস্টার মুক্তি

পুলিশ কর্মকর্তার বাসা থেকে গৃহকর্মীর মরদেহ উদ্ধার

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২ জুন, ২০২২
  • ৩৭

 

বংশাল থানার প্রতি‌নি‌ধি

সাংবা‌দিক নজরুল ইসলাম

 

রাজধানীর রমনার অফিসার্স কোয়ার্টারের একটি বাসা থেকে মৌসুমী (১৪) নামের এক গৃহকর্মীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহটি উদ্ধার করে। পরে ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) মর্গে পাঠায় রমনা থানা পুলিশ। জানা গেছে, মৌসুমীর বাড়ি

 

টাঙ্গাইলে। সে গৃহকর্মী হিসেবে রমনা অফিসার্স কোয়ার্টারে অতিরিক্ত আইজি আবু হাসান মো. তারিকের বাসায় কাজ করতো। তিনি রাজশাহীর সারদায় পুলিশ ট্রেনিং কলেজের অধ্যক্ষ। পুলিশের এক কনস্টেবল বাসায় গিয়ে অনেকক্ষণ ডাকাডাকি করলেও দরজা না খোলায় রমনা থানা পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। পরে রমনা থানা পুলিশ

 

গিয়ে দরজা ভেঙে বারান্দা থেকে তার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করে।রমনা থানার এসআই ইউনুছ আলী বলেন, বিকেলে খবর পেয়ে অফিসার্স কোয়ার্টারের বাসা থেকে মৌসুমী নামের গৃহকর্মীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। তার দেহ বাসার বেলকুনিতে লোহার অ্যাঙ্গেলের সঙ্গে রশি দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় ছিল। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় তদন্ত চলছে। কী কারণে সে গলায় ফাঁস দিয়েছে তা পরে জানানো হবে।

 

আরও পড়ুন= ধর্ষণের ঘটনা ধামাচাপা দিতে গার্মেন্টস কর্মী শারমিন বেগমকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর মাটিচাপা দেওয়া হয়। এ হত্যাকাণ্ডের সন্দেহভাজন হিসেবে সুমন কুমার নামে এক রিকশাচালককে আটক করেছে র‍্যাব। রাজধানীর খিলক্ষেতের ৩০০ ফিট এলাকা থেকে ১৬ এপ্রিল মাটিচাপা দেওয়া শারমিনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।১৭ এপ্রিল এ হত্যাকান্ডের অন্যতম আসামি সুমন কুমারকে (১৮) গ্রেফতারের পর জিজ্ঞাসাবাদে এমনই তথ্য পায় র‍্যাব। আসামি সুমন কুমারকে রাজধানীর খিলক্ষেত থানাধীন

 

কুড়াতলী কালীবাড়ি মোড় এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়।র‍্যাব-১ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল আব্দুল্লাহ আল মোমেন এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।তিনি বলেন, গ্রেফতারকৃত সুমন কুমার পেশায় একজন রিকশাচালক। ভিকটিম শারমিন খিলক্ষেতে এলাকার একটি গার্মেন্টস ফ্যাক্টরিতে চাকরি করতেন। সুমন কুমার বেশ কিছুদিন ধরে শারমিনের গার্মেন্টস ও বাসায় আসা যাওয়ার পথে তাকে অনুসরণ করতো। তারই ধারাবাহিকতায় ১০/১২ দিন পূর্বে শারমিনের সঙ্গে তার প্রথম পরিচয় হয়। চার-পাঁচ দিন ধরে শারমিনের সঙ্গে মোবাইলে কথা হয়। গত ১৩ এপ্রিল ভিকটিমকে তার রিকশায় নিয়ে বিভিন্ন জায়গায় ঘোরাঘুরি করে। ১৫ এপ্রিল ঘুরাঘুরির কথা বলে ভিকটিমকে তার বাসা

 

থেকে খিলক্ষেত থানাধীন ৩০০ ফিট এলাকায় ডেকে নিয়ে যায় এবং কৌশলে তাকে ধর্ষণ করে। ভিকটিমকে ধর্ষণের কথা গোপন করতে বললে সেটা অস্বীকৃতি জানায় এবং ধর্ষণের ঘটনা সে নালিশ করবে বলে সুমনকে জানায়। এতে সুমন ক্ষিপ্ত হয়ে ভিকটিমের গলার ওড়না পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে রাস্তার পাশে মাটি চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়।জিজ্ঞাসাবাদের প্রেক্ষিতে র‍্যাব শারমিনের ব্যবহৃত মোবাইল সীম সুমনের এক বন্ধুর কাছ থেকে উদ্ধার করেছে।১৬ এপ্রিল সকালে রাজধানীর খিলক্ষেত থানা এলাকার ৩০০ ফিট রাস্তার পাশে মাটি চাপা অবস্থায় শারমিন বেগম এর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved ©2023 -ওল্ডহাম বাংলা নিউজ |

সম্পাদক ও প্রকাশক: