মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ০৫:২৩ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
দেবিদ্বারে কেঁদে কেঁদে ঈগল প্রতিকে ভোট চাইলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী আবুল কালাম নৌকায় ভোট দিয়েই মেঘনার সঠিক উন্নয়ন ঘটানো সম্ভব… সেলিমা আহমাদ ঈগলে ভোট দিলে গোমতীর মাটি লুট জিবির নামে চাঁদাবাজি বন্ধ হবে: আবুল কালাম আজাদ দেবিদ্বারে স্বতন্ত্র প্রার্থীর নির্বাচনী অফিসে আগুন দিয়েছে দুর্বৃত্তরা কুমিল্লায় পুলিশের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানির অভিযোগ ব্রাজিলে ঘূর্ণিঝড়ে নিহত ২২ সিলেটে মসজিদের পুকুর থেকে ইমামের মরদেহ উদ্ধার সিলেটে সিএনজি স্টেশনের জেনারেটর বিস্ফোরণে দগ্ধ ৭ বার্মিংহাম সিটি কাউন্সিলের নিজেদের দেউলিয়া ঘোষণা মারা গেলেন লন্ডনের বাংলাদেশ হাইক‌মিশনের মিনিস্টার মুক্তি

লক্ষ্মীপুরের বেচু সন্ত্রাসী বাহিনীর অত্যাচার থেকে রক্ষা পেতে সংবাদ সম্মেলন

  • আপডেট টাইম : মঙ্গলবার, ৫ এপ্রিল, ২০২২
  • ৩৯

 

 

সাংবাদিক  সোহেল  হোসেন

লক্ষ্মীপুর , প্রতিনিধি।

লক্ষ্মীপুরের নতুন করে আবির্ভূত হয়েছে নুরআলম বেচু সন্ত্রাসী বাহিনী। এই সন্ত্রাসী বাহিনীর অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন সাধারণ মানুষ। নারী কেলেঙ্কারি, ভূমি জবর দখল, মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে হয়রানি ও চাঁদাবাজিসহ নানা অপরাধমূলক কর্মকান্ডে এখন আলোচনায় রয়েছে বেচু ও তার বাহিনী। সদর উপজেলার ১১নং হাজিরপাড়া ইউনিয়নের ত্রাস হিসেবে খ্যাত এ সন্ত্রাসের রাজত্ব বাহিনীর

সদস্য সংখ্যা এখন ৬০-৭০ জন।

মঙ্গলবার ০৫/০৪/২২ইং দুপুরে সদর উপজেলার মিরপুর উচ্চ বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে একাধিক ভুক্তভোগী এসব অভিযোগ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, দীর্ঘ দিন থেকে স্থানীয় নবী তাহেরপুর গ্রামের বাসিন্দা আব্দুল গফুরের ছেলে নুরআলম বেচু নিজেকে বাহিনী প্রধান পরিচয় দিয়ে এলাকায় সন্ত্রাসী কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছেন। তিনি নারী কেলেঙ্কারি, জমি জবর

দখল, মিথ্যা মামলায় জড়িয়ে সাধারণ মানুষদের হয়রানি ও চাঁদাবাজি, অশালীন আচরণসহ নানা অপরাধমূলক কর্মকান্ড চালাচ্ছেন। তার ভয়ে আতঙ্কিত হয়ে উঠেছেন গ্রামবাসী।

ভুক্তভোগিরা জানায়, তার ভয়ে স্থানীয় শফি কাজী ও তার পরিবার, সখিনা বেগম, আব্দুর রব ড্রাইভারের পরিবারসহ অসংখ্য মানুষ এলাকাছাড়া হয়েছেন। অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছেন সাধারণ মানুষ। ২০০১ইং সালে বেচু সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে গুলিবিদ্ধ হওয়ার পর সুস্থ্য হয়ে আরো বেপরোয়া হয়ে উঠেন। সোমবার দিবাগত রাতে বিবি কুলসুম ও তার যুবতী কন্যার উপর

নির্যাতন (মারধর) চালায় বেচু ও তার বাহিনীর সদস্যরা। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে তারা পালিয়ে যায় বলে অভিযোগ করেন ভুক্তভোগীরা।

সম্প্রতি তার অপকর্মের প্রতিবাদ করায় সে অখ্যাত

সবুজ জমিনের নিউজ মিথ্যা ও অপপ্রচার করা হয় এরা হলো হলুদ সাংবাদিক একটি অনলাইন মিডিয়ায় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গকে নিয়ে উল্টো অপপ্রচার চালায় বলে জানান তারা। এমন পরিস্থিতিতে তার বিচারের দাবি জানিয়েছেন সংবাদ সম্মেলনের আয়োজকরা। এই সময় উপস্থিত ছিলেন- ১১ং হাজিরপাড়া ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান মাসুদ রানা, ভুক্তভোগী চন্দ্রগঞ্জ থানা সেবকলীগের যুগ্ম সম্পাদক সালাহ উদ্দিন টিটু, ইউপি সদস্য মিঠু, কাজী আনোয়ার হোসেন, বণিক সমিতির সম্পাদক মো. ইস্রাফিল, বিবি কুলসুম প্রমুখ।

এসব বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযোগ অস্বীকার করে অভিযুক্ত নুরআলম বেচু বলেন- তার কোনো বাহিনী নেই। পরিকল্পিতভাবে সুবিধাভোগীরা তাকে এলাকা ছাড়ার পাঁয়তারা

করছে বলেও পাল্টা অভিযোগ করেন বেচু  ।।

নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

© All rights reserved ©2023 -ওল্ডহাম বাংলা নিউজ |

সম্পাদক ও প্রকাশক: